ঢাকা, সোমবার, ১৭ই জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ৩রা মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

অপেক্ষার অবসান, কাল এইচএসসি পরীক্ষা শুরু

২০২০ সালের মার্চ থেকে দেশে করোনার প্রাদুর্ভাব শুরুর পর সে বছর এইচএসসি পরীক্ষা হয়নি। ঐ বছর অটো পাস করেন পরীক্ষার্থীরা। এখন দেশে করোনার প্রকোপ কমায় ঘোষিত সূচি অনুযায়ী আগামীকাল বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা। এতে প্রায় ২ বছর ৮ মাসের অপেক্ষার অবসান হলো শিক্ষার্থীদের।
জানা গেছে, করোনা পরিস্থিতির জন্য প্রতিবারের ন্যায় এপ্রিলে এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার আয়োজন করা সম্ভব হয়নি। তবে দেশে করোনাভাইরাসে শনাক্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা কমায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা হয়েছে। একই সঙ্গে এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার আয়োজনের দিন ২ ডিসেম্বর নির্ধারণ করা হয়। এরই মধ্যে শিক্ষা মন্ত্রণালয় পরীক্ষা সংক্রান্ত সব ধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, করোনাভাইরাসের কারণে এবার সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে এবারের এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা হবে। ১১টি বোর্ডের অধীনে পরীক্ষায় অংশ নেবেন ১৩ লাখ ৯৯ হাজার ৬৯০ জন শিক্ষার্থী। এবার দেড় ঘণ্টায় পরীক্ষা সম্পন্ন হবে।

এদিকে দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন ছড়িয়ে পড়ায় বিশ্বজুড়ে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। বাংলাদেশে এখনো করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়নি। তবে এরই মধ্যে বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতো বাংলাদেশেও ভ্যারিয়েন্টটি উদ্বেগ ছড়িয়েছে। আর নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন নিয়ে সতর্ক অবস্থানে রয়েছে সরকার।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, এইচএসসি পরীক্ষা নিয়ে সবধরনের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। আর ওমিক্রন নিয়ে সরকার সতর্ক অবস্থানে রয়েছে।

পরীক্ষার সময় কেন্দ্রের আশপাশে অভিভাবকদের অহেতুক ভিড় না করতে শিক্ষামন্ত্রী আহ্বান জানিয়েছেন। একই সঙ্গে তিনি নীতিনির্ধারকদের সতর্ক থাকার নির্দেশনা দিয়েছেন।