ঢাকা, শুক্রবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

রাইড শেয়ারিং সেবা বিষয়ে মতবিনিময় সভা

আজ ২৪ জানুয়ারি ২০২৩ তারিখ সকাল ১২.০০ টায় অধিদপ্তরের প্রধান কার্যালয়ের সভাকক্ষে (১, কারওয়ান বাজার, টিসিবি ভবন-৮ম তলা) রাইড শেয়ারিং সেবা বিষয়ে রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদানকারী (উবার, পাঠাও, ওভাই ইত্যাদি) প্রতিষ্ঠানসমূহ ও চালকগণের সাথে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

বর্ণিত সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) জনাব এ.এইচ.এম. সফিকুজ্জামান। সভায় উপস্থিত ছিলেন অধিদপ্তরের প্রধান কার্যালয়ের কর্মকর্তাগণ, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধি, ঢাকা মেট্রো পলিটন পুলিশের ট্রাফিক বিভাগের প্রতিনিধি, ক্যাবের প্রতিনিধি, বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব, ঢাকা রাইড শেয়ারি ড্রাইভার্স ইউনিয়নের সভাপতি, উবার বাংলাদেশ এর প্রতিনিধি, পাঠাও এর প্রতিনিধি, ওভাই এর প্রতিনিধি এবং প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

সভায় রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে বিদ্যমান সমস্যাসমূহ এবং তা থেকে উত্তরণের বিষয়ে আলোচনা করা হয়। আলোচনায় রাইড শেয়ারিং নীতিমালা, ২০১৭ অনুসরণ না করা, রাইড শেয়ারের ভাড়া নির্ধারণ ও পিক-অফপিক আওয়ারের ভাড়া নির্ধারণ পদ্ধতি সুস্পষ্ট না থাকা, রাইড রিকোয়েস্ট পাওয়ার পরে চালক কর্তৃক যাত্রীর নিকট কোন গন্তব্য জানতে চাওয়া এবং গন্তব্য পছন্দ না হলে রিকোয়েস্ট বাতিল করা, রাইড শেয়ারিং কর্তৃপক্ষ কর্তৃক কারণ ব্যাতিরেকে চালকদের আইডি বন্ধ করা, রাইড শেয়ারিং কর্তৃপক্ষ কর্তৃক রাইড শেয়ারিং এর ভাড়া কতটুকু যৌত্তিক রাখা হচ্ছে সে বিষয়ে স্পষ্টতা না থাকা ইত্যাদি সমস্যাগুলো চিহ্নিত করা হয়।
সভায় মহাপরিচালক রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদানের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিকনির্দেশনা প্রদান করেন। তিনি রাইড শেয়ারিং কর্তৃপক্ষকে যাত্রী থেকে আদায়কৃত ভাড়ার কত শতাংশ প্রতিষ্ঠান রাখছে এবং কত শতাংশ চালকগণকে প্রদান করা হচ্ছে সে সকল তথ্যাদি অধিদপ্তরে প্রদানের বিষয়ে বলেন। তিনি আরো বলেন সেবা প্রদানের এই সেক্টরটি নতুন হাওয়ায় সেবাগ্রহীতাগণকে প্রতিশ্রুত সেবা প্রদানে প্রতিষ্ঠানসমূহকে প্রতিনিয়ত কাজ করতে হবে। তিনি রাইড শেয়ারিং কর্তৃপক্ষকে ও চালকগণকে সকল সরকারি আইন ও বিধিবিধান অনুসরণ করে যাত্রীগণকে প্রতিশ্রুত সেবা প্রদান নিশ্চিত করার কথা বলেন। তিনি সভায় অংশগ্রহণকারীবৃন্দের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন। এছাড়াও তিনি সভায় চিহ্নিত সমস্যাসমূহ থেকে উত্তরণের জন্য যে সকল সাজেশন এসেছে এবং রাইড শেয়ারিং কর্তৃপক্ষের নিকট থেকে চাহিত তথ্যাদি পাওয়ার পর সকল বিষয় পর্যালোচনা করে সুপারিশসহ একটি লিখিত প্রতিবেদন বিআরটিএসহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট প্রেরণের মাধ্যমে সরকারের দৃষ্টি আকর্ষণের ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলে জানান। আলোচনা শেষে মহাপরিচালক রাইড শেয়ারিং সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে বিদ্যমান সমস্যা সমাধানে সকলে সমন্বিতভাবে কাজ করবে সে বিষয়ে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি সভা শেষে প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দকে ভোক্তা-অধিকার সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সমসাময়িক বিষয় জনসাধারণের মাঝে তুলে ধরার পাশাপাশি জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের কার্যক্রম প্রচারে সহযোগিতা করার জন্য ধন্যবাদ জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Email this to someone
email
Print this page
Print
Pin on Pinterest
Pinterest

দৈনিক নবচেতনার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন