ঢাকা, শুক্রবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ১৩ই মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

আবারও প্রেসিডেন্ট প্রার্থী

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান জানিয়েছেন, পরবর্তী পার্লামেন্ট ও প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে ১৪ মে। ২১ জানুয়ারি উত্তর-পশ্চিম বুরসা প্রদেশে আয়োজিত এক যুব সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন তিনি। রবিবার ওই অনুষ্ঠানের একটি ভিডিও প্রকাশ করা হয়। তুরস্কের প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচনে এবারও রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান লড়বেন বলে জানিয়েছে কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা। এর আগে গত সপ্তাহেই তিনি নির্বাচনের ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। শনিবারের ওই যুব সম্মেলনে এরদোগান বলেন, ‘আমাদের তরুণরা মূল্যবান। তারা ১৪ মে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনে প্রথমবারের মতো ভোট দেবে।’ তিনি বুরসায় বলেছিলেন, নির্বাচনের জন্য ১০ মার্চ আনুষ্ঠানিক কল করা হবে। তারপর তুরস্কের সুপ্রিম ইলেকশন কাউন্সিল নির্বাচনের প্রস্তুতি নেবে। কোনো প্রার্থী ৫০ শতাংশের বেশি ভোট না পেলে ২৮ মে দ্বিতীয় দফার ভোট হবে। এদিকে নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা হলেও ছয় দলের বিরোধী জোট এখনো রাষ্ট্রপতি পদে প্রার্থী দিতে পারেনি। এ জন্য তারা এরদোগানবিরোধী নানা মন্তব্য করছে। বিরোধীরা তুরস্কের অর্থনৈতিক মন্দা, নাগরিক অধিকার ও স্বাধীনতার ক্ষয়ের জন্য ৬৮ বছর বয়সী এরদোগানকে দায়ী করছে। তারা বলছে, সংশোধিত সরকার ব্যবস্থা ‘একজনের শাসন’-এর সমান। এরদোগান প্রধানমন্ত্রীর অফিস অবলুপ্ত করে দেন ২০১৮ সালে এবং প্রেসিডেন্টের হাতে প্রায় সব ক্ষমতা কেন্দ্রিভূত করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter
Email this to someone
email
Print this page
Print
Pin on Pinterest
Pinterest

দৈনিক নবচেতনার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করুন